Tuesday, April 23, 2024
35 C
Rajshahi
spot_img
হোমরাজশাহী বিভাগরাজশাহীতে পূর্ব শত্রুতার জেরে প্রতিপক্ষের হামলায় যুবক নিহত

রাজশাহীতে পূর্ব শত্রুতার জেরে প্রতিপক্ষের হামলায় যুবক নিহত

রাজশাহীতে পূর্ব শত্রুতার জেরে প্রতিপক্ষের হামলায় যুবক নিহত

মেহেদী হাসান, নিজস্ব প্রতিনিধিঃ আরএমপি দামকুড়া থানার চর মাজারদিয়াড় এলাকায় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে আবু সাঈদ (৩০) নামের এক যুবককে কুপিয়ে হত্যা করেছে প্রতিপক্ষরা। মঙ্গলবার রাত টার দিকে চর মাজারদিয়াড় হাড়ুপাড়া ব্রিজের কাছে ঘটনা ঘটে। নিহত আবু সাঈদ চর মাজারদিয়াড় মধ্যপাড়া গ্রামের আমির হোসেন চৌকিদারের ছেলে। নিহত আবু সাঈদ কৃষক।

ঘটনা সূত্রে জানা গেছে, আরএমপি দামকুড়া থানার চর মাজারদিয়াড় এলাকায় মধ্যপাড়া গ্রামের আমির হোসেন চৌকিদারের ছেলে আবু সাঈদের সাথে দীর্ঘদিন যাবত ওই এলাকার কিছু মাদক ব্যবসায়ীদের সাথে শত্রুতা চলছিলো। মাদক ব্যবসার বিরুদ্ধে আবু সাঈদ প্রতিবাদ করায় বিরোধ সৃষ্টি হয় তার মাদক কারবারিদের সাথে সাঈদের। মঙ্গলবার রাত টার দিকে চর মাজারদিয়াড় মধ্যপাড়া গ্রামে সাঈদের বাড়ি থেকে তার বন্ধু মোস্তফাকে মটোর সাইকেলে করে হাড়ুপাড়া গ্রামে তার বন্ধুর বাড়িতে রাখতে যায়।

তার বন্ধুকে বাড়িতে রেখে সাঈদ একা তার মটোরসাইকেল নিয়ে বাড়ি ফিরছিলেন। এসময় সাঈদ চর মাজারদিয়াড় হাড়ুপাড়া ব্রিজের কাছে রাত টার দিকে পৌছালে পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে শীর্ষ মাদক চোরাকারবারি সিন্ডিকেটের সদস্য প্রতিপক্ষ চর মাজারদিয়াড় স্কুল পাড়া গ্রামের রাজ্জাক ঘোষের ছেলে শাহিন, কামাল মোল্লার ছেলে কাবিল শামসুলের নেতৃত্বে ধারালো অস্ত্র কান্তাই, হাসুয়া নিয়ে মৃত সোবহানের ছেলে সাজেমুলে তার ভাই ইব্রাহিমমহিউদ্দিনের ছেলে এনামুল, চর খানপুরের শাজাহানের ছেলে জামাল, রমজানের ছেলে রাজীব, সাহেবের ছেলে হোসাইন সহ অজ্ঞাত ১০ থেকে ১৫ জন সাঈদের পথ রোধ করে হটাৎ সাঈদের পায়ে গুলি করলে সে বাইক থেকে পড়ে যায়। এসময় তাকে এলোপাতাড়ি ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর জখম করে প্রতিপক্ষরা। হামলা কারিরা সবাই মাদক চোরাকারবারি সিন্ডিকেটের সদস্য।

এসময় মাদক ব্যবসায়ীরা হামলাকারি কৃষক সাঈদকে মৃত ভেবে ফেলে রেখে ঘটনা স্থল থেকে দ্রুত পালিয়ে যায়। পরে স্থানিয়রা সাঈদের পরিবারকে ফোন করে বিষয়টি জানালে তার পরিবারের লোকজন ঘটনা স্থলে গিয়ে গুরতর জখম হয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় মাটিতে পড়ে থাকতে দেখে তাকে উদ্ধার করে দ্রুত রামেক হাসপাতালে জরুরী বিভাগে ভর্তি করালে হাসপাতালের কর্মরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করে।

নিহত সাঈদের মরদেহ ময়না তদন্তের জন্য রামেক হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে। ময়না তদন্ত শেষে মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে বলে জানান রামেক হাসপাতালের কর্মরত চিকিৎসক। ঘটনায় আরএমপি দামকুড়া থানায় নিহত সাঈদের স্ত্রী বাদি হয়ে রাতেই হত্যা কারিদের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত থেকে জনকে অজ্ঞাত আসামী করে একটি হত্যা মামলাদায়ের করে।

বিষয় দামকুড়া থানার অফিসার ইনচার্জ মশিউর রহমান বলেন, পূর্ব শত্রুতার জের ধরে হামলার ঘটনা ঘটে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

ঘটনায় নিহত সাঈদের স্ত্রী বাদি হয়ে রাতেই মামলা দায়ের করেছে থানায়। বিষয়টি দ্রুত তদন্ত করে আসামীদের গ্রেপ্তারে পুলিশের অভিযান রাত থেকেই শুরু হয়েছে। আশা করি দ্রুত আসামীদের গ্রেপ্তার করা হবে বলে জানান ওসি।

স্বাধীন জনপদের সাথেই থাকুন

সম্পর্কিত সংবাদ

স্বাস্থ্যকথা

- Advertisment -

ইসলাম